Monday, January 17, 2022
Home > ইসলাম > আজ শবেবরাত

আজ শবেবরাত

Spread the love

অক্ষর  : আজ শবেবরাত। পবিত্র এ রজনী সম্পর্কে আল্লাহর রাসুলের হাদীস আছে।এ রাতের আমল সম্পর্কে নবীজী (সাঃ) বলেছেন,যখন শা’বানের অধর্কে চলে আসে অর্থাৎ ১৪ তারিখ দিবাগত রাত।সে রাতে তোমরা ইবাদাতে (রাতে দাঁড়িয়ে যাও) মশগুল হও আর দিনে রোযা রাখো।এরপর বলেন,এ রাতে আল্লাহ প্রথম আসমানে এসে তার বান্দাদের ডাকেন :যে, কেউ আছো পাপী। আমার কাছে ক্ষমা চাইবে।আমি তাকে মাফ দিব।কেউ আছো অভাবী। আমার কাছে চাও।আমি তার অভাব দূর করে দিবো।কেউ আছো বিপদগ্রস্ত? আমার কাছে প্রার্থনা করো।আমি তার সমস্যা দূর করে দিব।এভাবে আল্লাহ ডাকতেই থাকেন।এমনকি ফজর হয়ে যায়।
তাই এ বিশেষ একটি দিনে আমরা ইবাদাতে মনোযোগী হব। এখানে আমাদের লক্ষ্য রাখা উচিৎ। হাদীসে এ দিনে নফল ইবাদাতের কথা বলা হয়েছে। স্বাভাবিকভাবে এ রাতে যদি কেউ অতিরিক্ত নামাজ বা ইবাদাত বন্দেগী না করে।তাহলে তার গুনাহ হবেনা।তবে,কেউ যদি সারারাত ইবাদত করলো ঠিক।কিন্তু সকালে তার ফজর ছু্ঁটে গেলো।সে ফরজ ত্যাগের শাস্তি পাবে।সুতরাং এ রাত থেকে আমরা এ শিক্ষাও নিব যে, যদি আমরা নফল ইবাদাতের জন্য এভাবে মসজিদে একত্রিত হতে পারি।তাহলে সারা বছর কেন মসজিদে আসবোনা।আমরা এ রাতে বিশেষভাবে আল্লাহর কাছে দোআ করবো। আল্লাহ যেন আমাদের ক্ষমা করেন।তার রহমের চাদরে আমাদের আবৃত করে নেন এবং সারা বছর সমস্ত ইবাদত পালন করার তৌফিক দেন।আল্লাহর কাছে ক্ষমাই আমাদের একমাত্র চাওয়া।

তবে,এ শবে বরাত নিয়ে সমাজে কাটাছেড়াও চলছে বেশ।কেউ বাড়িয়ে বলে খুব।কেউবা আবার ছেড়ে দেয় একদম। আসলে এটা একদমই কাম্য নয়। বরং এ পবিত্র রাতকে ইবাদতের মধ্যে কাটানোই উত্তম। কারন, নফল ইবাদত বান্দাকে আল্লাহর নিকটবর্তী করে দেয়।

লিখেছেন : কাউসার মাহমুদ

Facebook Comments